নার্সিং পেশা | নার্সদের কাজ কি? নার্সিং পড়ার খরচ? সকল তথ্য 2024

সুপ্রিয়, শিক্ষার্থী বন্ধুরা সবাইকে স্বাগতম নার্সিং সিরিজের নতুন একটি আর্টিকেলে তোমাদের সবাইকে Wellcome করছি। যারা নার্সিং পড়তে চাচ্ছেন ও নার্সিং আসতে চাচ্ছেন তাদের জন্য নার্সিং সম্পর্কিত সম্পূর্ণ একটি গাইড লাইন নিয়ে আজকের পর্বটি।

নার্সিং পেশা কি, নার্সিং কাদের জন্য,নার্সিং এ কেন আসবেন এবং নার্সিং এ কেন আসবেন, নার্সিং এর ক্যারিয়ার কেমন, নার্সিংয়ের যাবতীয় খরচ সম্পর্কিত সকল তথ্য এই আর্টিকেলে আলোচনা করা হবে। আশা করছি, এই আর্টিকেল পড়ার পর তোমাদের নার্সিং সম্পর্কিত যাবতীয় সকল কনফিউশন দূর হয়ে যাবে এবং নার্সিং করার জন্য ভালো একটি দিক নির্দেশনা পাবে।

নার্সিং কি ? । what is nursing

নার্সিং হলো বাংলাদেশ মেডিকেল স্বাস্থ্য সেবার একটি গুরুত্বপূর্ণ সেক্টর। তুমি যদি সরকার অনুমোদিত দেশের কোন নার্সিং প্রতিষ্ঠান থেকে নার্সিং ডিগ্রী সম্পন্ন করতে পারো তাহলে তুমি একজন নার্স হিসেবে যোগ্য হয়ে উঠবে। এখানে সবারই একটি ভ্রান্ত ধারণা আছে যে , নার্স মানেই একজন ডাক্তারের মহিলা সহযোগী এবং নার্সিং কোর্সটি শুধুমাত্র মহিলাদের জন্যই। না, এটি সম্পূর্ণ একটি ভ্রান্ত ধারণা! যদি কেউ নার্সিং ডিগ্রি সম্পন্ন করে, সে ছেলে অথবা মেয়েই হোক সে একজন নার্স হতে পারবে এবং এখানে তার ক্যারিয়ার তৈরি করতে পারবে।

নার্সিং কোর্সটি কাদের জন্য এবং নার্সিং এ কারা পড়তে পারবে?

যাদের স্বাস্থ্য সেবা নিয়ে কাজ করার আগ্রহ আছে এবং প্রাথমিক ও মাধ্যমিক পর্যায়ের চিকিৎসা সেবার শিক্ষা গ্রহণ করার যাদের ইচ্ছা তারা নার্সিং কোর্স আসতে পারে। যারা নার্সিং এ নিজেদেরকে ক্যারিয়ার তৈরি করতে চায় এবং বাংলাদেশ স্বাস্থ্যসেবার একজন প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করতে চায় তাদের সকলের জন্যই নার্সিং একটি সেরা শিক্ষা ব্যবস্থা হতে পারে। এসএসসি এবং এইচএসসি সম্পূর্ণকারী যে কোন শিক্ষার্থী চাইলে নার্সিং কোর্সে আসতে পারবে।

নার্সিং পড়ার শিক্ষাগত যোগ্যতা | Educational qualification for nursing

আমাদের কাছে সবথেকে বেশি প্রশ্ন এসে থাকে, নার্সিং করতে হলে শিক্ষাগত যোগ্যতা কেমন দরকার এবং কি কি সার্টিফিকেট থাকতে হবে ইত্যাদি। বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এসএসসি এবং এইচএসসি পাশ করা যেকোনো ছেলে অথবা মেয়ে চাইলে বাংলাদেশের সরকার অনুমোদিত যে কোন নার্সিং কলেজ থেকে নার্সিং ডিগ্রি সম্পন্ন করতে পারে।

নার্সিং এর চলমান কোর্স গুলো কি কি | All Nursing Course List

বাংলাদেশ নার্সিং এন্ড মিডওয়াইফারি কাউন্সিল এর অনুমোদিত বাংলাদেশ নার্সিং কলেজগুলোতে তিনটি কোর্স রয়েছে। নার্সিং কোর্সগুলো হলো:

  • ডিপ্লোমা ইন নার্সিং (৩ বছর মেয়াদি)
  • ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারি (৩ বছর মেয়াদি)
  • বিএসসি ইন নার্সিং (৪ বছর মেয়াদি)

ডিপ্লোমা ইন নার্সিং কাদের জন্য? = মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) সাথে উচ্চ মাধ্যমিক (এইচএস সি) পরীক্ষায় উত্তীর্ণ যে কোন বিভাগের শিক্ষার্থী (ছেলে/মেয়ে ) চাইলে ডিপ্লোমা নার্সিং কোর্সে ভর্তি হতে পারে। তবে, তাকে অবশ্যই HSC পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে হবে।

ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারি কোর্সটি কাদের জন্য?= তোমাদের মধ্যে অনেকেই মিডওয়াইফারি কোর্সটি সম্পর্কে পরিচিত নয়। মিডওয়াইফারি হচ্ছে দাত্রীবিদ্যা বা প্রসূতিবিদ্যা। ডিপ্লোমা ইন নার্সিং কোর্সে ছেলেমেয়ে উভয়ই শিক্ষার্থী ভর্তি হতে পারলেও, ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারি কোর্সটি শুধুমাত্র মেয়েদের জন্যই।এসএসসি এবং এইচএসসি পাশ করা শুধুমাত্র মেয়ে শিক্ষার্থীরা ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারি কোর্সটি করতে পারবে।

বিএসসি ইন নার্সিং কোর্সটি কাদের জন্য? = যে সকল শিক্ষার্থীরা বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এইচএসসি পরীক্ষা সম্পন্ন করে এসেছে শুধুমাত্র তারাই বিএসসি নার্সিং কোর্সটিতে ভর্তি হতে পারবে। তাছাড়া যে সকল শিক্ষার্থীরা ডিপ্লোমা নার্সিং ডিগ্রী সম্পন্ন করেছে তারা চাইলেও বিএসসি নার্সিং কোর্সটিতে ভর্তি হতে পারবে।

কোথায় পড়বেন নার্সিং

বাংলাদেশে মোট ৬৯ টি সরকারি নার্সিং এন্ড মিডওয়াইফারি ইনস্টিটিউট রয়েছে। তোমরা চাইলে তার মধ্যে যে কোন একটিতে ভর্তি হতে পারো। তবে, সরকারি নার্সিং ইনস্টিটিউট গুলোতে আসন সংখ্যা সীমিত। তাছাড়াও বাংলাদেশ নার্সিং এন্ড মিডওয়াইফারি কাউন্সিলের ( BNMC) অনুমোদিত দেশের যেকোন বেসরকারি নার্সিং কলেজে তোমরা নার্সিং ডিগ্রী সম্পন্ন করতে পারো।

বাংলাদেশের প্রায় প্রতিটি জেলায় একটি নার্সিং এন্ড মিডওয়াইফারি ইনস্টিটিউট রয়েছে। তোমরা নিচে থেকে সরকারি নার্সিং কলেজ গুলোর তালিকা দেখতে পারো।

কিভাবে আপনি নার্সিং কোর্সে আসবেন / কিভাবে নার্সিং এ ভর্তি হবেন / নার্সিং ভর্তি পদ্ধতি

HSC পরীক্ষা কমপ্লিট করার পর আপনি নার্সিং পরীক্ষার জন্য আবেদন করতে পারবেন। প্রত্যেক বছর মার্চের ১০ থেকে ১৫ তারিখের ভিতরেই নার্সিং ভর্তির সার্কুলার দিয়ে থাকে। আপনারা তখন নার্সিং কলেজ গুলোর জন্য আবেদন করবেন। আবেদনের সময়সীমা প্রায় এক মাস পর্যন্ত থাকে, আপনারা আপনার (ডিপ্লোমা ইন নার্সিং, মিডওয়াইফারি, বিএসসি ইন নার্সিং) পছন্দের কোর্সের জন্য আবেদন করতে পারবেন।

নার্সিং পড়াশোনার খরচ কেমন? বেসরকারি নার্সিং পড়ার খরচ | সরকারি নার্সিং পড়ার খরচ

যদি তুমি নার্সিং পড়াশোনা খরচ সম্পর্কে জানতে চাও তাহলে, জেনে নিতে হবে যে অন্যান্য পড়ালেখার তুলনায় নার্সিং এর খরচটা তুলনামূলক বেশি হয়ে থাকে। নার্সিং পড়াশোনার খরচ নির্ভর করে প্রতিষ্ঠানের উপর। তুমি সরকারী অথবা বেসরকারি কি রকমের কলেজে পড়তে ইচ্ছুক?

সরকারি নার্সিং পড়াশোনার খরচ: তুমি যদি নার্সিং ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে যেকোনো সরকারি নার্সিং প্রতিষ্ঠানে চান্স পেয়ে যাও তাহলে তুমি একেবারেই নামমাত্র খরচেই নার্সিং ডিগ্রী সম্পন্ন করতে পারবে। বইপত্র ও পরীক্ষার ফিস বাদে, সরকারি নার্সিং খরচ কলেজের পড়ালেখা সম্পূর্ণ ফ্রি। তোমরা অবশ্যই হাতে সময় রেখে, নার্সিং ভর্তি পরীক্ষার জন্য নিজেকে প্রস্তুত করে তুলবে। যদি তুমি ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে যাও, তাহলে তোমার কাঙ্খ্যিত নার্সিং কোর্সটি ফ্রীতেই সম্পন্ন করতে পারবে।

বেসরকারি নার্সিং পড়াশোনার খরচ (Private Nursing college education cost): তুমি যদি কোন বেসরকারি নার্সিং কলেজ থেকে ডিপ্লোমা ইন নার্সিং, বিএসসি ইন নার্সিং এবং মিডওয়াইফারি ডিগ্রী সম্পন্ন করতে চাও তাহলে প্রতিষ্ঠান বেদে দেড় লক্ষ টাকা থেকে ৪ লক্ষ টাকা পর্যন্ত খরচ হওয়া সম্ভাবনা রয়েছে। তবে তুমি প্রত্যেক পরীক্ষায় যদি সাফল্যের সহিত উত্তীর্ন হতে পারো সেক্ষেত্রে , নার্সিং কলেজগুলো বিশাল আকারের একটি ডিসকাউন্ট দিয়ে থাকে।

👉নার্সিং পড়ালেখার যাবতীয় সকল খরচ

তাছাড়াও বেসরকারি নার্সিং কলেজের খরচ সম্পর্কে জানতে এই আর্টিকেলটি পড়তে পারো। এই আর্টিকেলটিতে সম্পূর্ণ ধাপে ধাপে আলোচনা করা হয়েছে নার্সিং পড়ালেখার যাবতীয় সকল খরচ সম্পর্কে।

Leave a Comment